১০ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, বৃহস্পতিবার

Generic selectors
Exact matches only
Search in title
Search in content
Search in posts
Search in pages
Filter by Categories
Uncategorized
ইসলামী জীবন
ঔষধ ও চিকিৎসা
খাদ্য ও পুষ্টি
জানুন
নারীর স্বাস্থ্য
পুরুষের স্বাস্থ্য
ভিডিও
ভেসজ
যৌন স্বাস্থ্য
রান্না বান্না
লাইফ স্টাইল
শিশুর স্বাস্থ্য
সাতকাহন
স্বাস্থ্য ও সৌন্দর্য
স্বাস্থ্য খবর

ম্যাসাজ পার্লারে যা ঘটালেন যুবতী! (ভিডিও)

ম্যাসাজ পার্লার নিয়ে মানুষের কৌতূহলের অন্ত নেই। ‘রিল্যাক্সিং বডি ম্যাসাজ’ সংক্রান্ত বিজ্ঞাপন খবরের কাগজে বা ল্যামপোস্টের গায়ে দেখলেই মনে প্রশ্ন জেগে ওঠে, ঠিক কি হয় এই সমস্ত ম্যাসাজ পার্লারের ভিতরে? সেই কৌতূহলকে কিছুটা নিরসন করার জন্যই সম্প্রতি একটি ভিডিও প্রকাশ হয়েছে সোশাল মিডিয়ায়।

কী রয়েছে এই ভিডিও-তে? মুম্বাইয়ের একটি ম্যাসাজ পার্লারে বডি ম্যাসাজ নিতে গিয়েছিলেন এক যুবক। সারা সপ্তাহের কাজকর্মের পরে সপ্তাহান্তে একটু আয়েশের উদ্দেশ্যেই ম্যাসাজ পার্লারের দ্বারস্থ হয়েছিলেন তিনি। পার্লারে পৌঁছানোর পরে একটি নির্দিষ্ট ঘরে তাকে যেতে বলা হয়। সেই ঘরে গিয়ে তিনি দেখেন, এক তরুণী তাকে ম্যাসাজ করার জন্য অপেক্ষা করছেন। কমলা শার্ট এবং চোট প্যান্ট পরিহিত সুন্দরী তরুণীকে দেখে প্রথমে কিছুটা ঘাবড়েই যান যুবক। তিনি ভাবতেই পারেননি এক জন পুরুষকে ম্যাসাজ করার জন্য উপস্থিত থাকবেন এক তরুণী। প্রাথমিক বিহ্বলতা কাটিয়ে যুবক ম্যাসাজের জন্য নির্দিষ্ট বিছানায় বসেন। তরুণী তাকে টি-শার্টটা খুলে ফেলতে বলেন। যুবক যখন শার্ট খুলছেন, তখনই তিনি লক্ষ্য করেন, তরুণীও নিজের শার্টটা খুলে ফেললেন। কি কাণ্ড! ম্যাসেজ করার জন্য ম্যাসিওরকে পোশাক খুলতে হবে কেন! সাসপেন্স বাড়িয়ে তরুণী এ বার যুবককে বলেন, ‘স্যার, আপনি শুয়ে পড়ুন। ‘ যুবক তা-ই করেন। তার শরীরের নিম্নাংশে তোয়ালে চাপা দিয়ে কোমল হাতে তরুণী ম্যাসাজ শুরু করেন। কিন্তু তখনও যুবকের ধারণা ছিল না, কি হতে চলেছে তার সঙ্গে।

ম্যাসাজ যখন শেষের মুখে তরুণী তখন কোমল স্বরে যুবককে হঠাৎই বলেন, ‘স্যার, আপনি কি হ্যাপি এন্ডিং চান?’ প্রশ্নটার অশালীন ইঙ্গিত বুঝতে অসুবিধা হয়নি যুবকের। তিনি তাড়াতাড়ি বলেন, ‘না না, আমি নরম্যাল ম্যাসাজ চাই। ‘ তরুণী কিন্তু
‘হ্যাপি এন্ডিং’-এর জন্য জোরাজুরি করতে থাকেন। এমন সময়ে আচমকা ঘরের দরজা খুলে ঢুকে পড়েন এক বিশালদেহী পুলিশ অফিসার। সঙ্গে সঙ্গে তরুণীও ভোল বদলে ফেলেন। তিনি চিৎকার করে বলে ওঠেন, ‘আমাকে ছেড়ে দিন, আমাকে ছেড়ে দিন। ‘ যেন যুবক তার সঙ্গে কোনো অশালীন কাজ করছেন জোর করে। পুলিশ অফিসারকে দেখে কাঁদতে কাঁদতে যুবতী বলেন, ‘স্যার, এই লোকটা আমার সঙ্গে জোর করে অশালীন কাজ করার চেষ্টা করছিল। ‘ অফিসার সঙ্গে সঙ্গে যুবকের হাত ধরে বলেন, ‘মেয়েদের সঙ্গে অসভ্যতা! চল থানায়। ‘ যুবক অফিসারের হাতে-পায়ে ধরে বোঝানোর চেষ্টা করেন, মেয়েটি মিথ্য‌ে বলছে, তিনি কিছুই করেননি। কিন্তু অফিসার নাছোড়। তার স্পষ্ট কথা, হয় থানায় যেতে হবে, নয়তো নিদেন পক্ষে যুবকের বাবার ফোন নাম্বার চাই। তার বাবাকে ফোন করে তিনি জানাবেন ছেলের কীর্তি।

এই পর্যন্ত পড়ে অনেকেই শিউরে উঠেছেন নির্ঘাত। আসলে কিন্তু গোটা ব্যাপারটাই ছিল প্র্যাঙ্ক, অর্থাৎ নিছক মজার ছলে। যে যুবককে এই প্র্যাঙ্কের শিকার বানানো হয়েছিল, গোটা মজাটির পরিকল্পনাকারীরা ছিলেন তারই বন্ধু। তারাই ঠাট্টার ছলে বন্ধুকে বোকা বানালেন। ভিডিও-র শেষে হাসতে হাসতে তারা ঘরে ঢুকে পড়তেই গোটা ব্যাপারটা স্পষ্ট হয় যুবকের কাছে।

এই ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ফেসবুক, বা টুইটার ব্যবহারকারীরা বলছেন, এমনটা তো সত্যিই ঘটে যেতে পারে কোনো ম্যাসাজ পার্লারে। হয়েও তো থাকে এরকম ঘটনা। নিছক রিল্যাক্সেশনের জন্য যারা পার্লারে গিয়েছেন, তাদেরও অনেক সময়ে নানা বিব্রতকর পরিস্থিতিতে ফেলে ব্ল্যাকমেইল করা হয়। কাজেই এই প্র্যাঙ্ক ভিডিও তো এক অর্থে সামাজিক সচেতনতা বৃদ্ধিরও কাজ করছে। সেই কথা মাথায় রেখে অজস্র শেয়ার হয়ে চলেছে এই ভিডিও। সূত্র: এবেলা

https://www.youtube.com/watch?v=zRWy7GDwr34

 

Comments

comments