২২শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, বুধবার

Generic selectors
Exact matches only
Search in title
Search in content
Post Type Selectors
Filter by Categories
Uncategorized
ইসলামী জীবন
ঔষধ ও চিকিৎসা
খাদ্য ও পুষ্টি
জানুন
নারীর স্বাস্থ্য
পুরুষের স্বাস্থ্য
ভিডিও
ভেসজ
যৌন স্বাস্থ্য
রান্না বান্না
লাইফ স্টাইল
শিশুর স্বাস্থ্য
সাতকাহন
স্বাস্থ্য ও সৌন্দর্য
স্বাস্থ্য খবর

প্রকাশ্যেই বিজ্ঞাপন দিয়ে পাড়ায় যে ব্যবসা করছে !

থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, হঠাত্‍ গজিয়ে ওঠা ম্যাসাজ পার্লার ছাড়া এলাকার বিভিন্ন ফ্ল্যাটেও চলছে যৌন ব্যবসা।

‘কটা প্রোফাইল?’ বাগুইআটির বিভিন্ন অংশে যৌনব্যবসার পাসওয়ার্ড এখন এটাই। প্রোফাইলের অর্থ মহিলা।
বাগুইআটির চাউলপট্টির একটি ফ্ল্যাট থেকে যৌনব্যবসার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে এক কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারী-সহ চারজনকে সম্প্রতি গ্রেফতার করেছে পুলিশ। চাউলপট্টি, দেশবন্ধুনগর, রঞ্জনাগলি, কেষ্টপুর-সহ ভিআইপি রোড সংলগ্ন বিভিন্ন এলাকার অনেক ফ্ল্যাটে এই ব্যবসা চলে বলে অভিযোগ। সেই ব্যবসার পরিধি এমনই যে এলাকার বিভিন্ন জায়গায় প্রকাশ্যে মোবাইল নম্বর দিয়ে মহিলাদের ছবি-সম্বলিত পোস্টার সাঁটা হয়েছে।

 জানা গিয়েছে, এই যৌন ব্যবসার চক্র কাজ করে কিছু ল্যান্ডলাইন নম্বরের মাধ্যমেও। সেই নম্বরে ফোন করলে মোবাইলে পাঠানো হয় মেসেজ। সেখানেই দেওয়া হয় দালালের মোবাইলের নম্বর। সেই নম্বরে ফোন করলে নির্দিষ্ট ম্যাসাজ পার্লারে পৌঁছে দেওয়ার কাজ চলে। তবে প্রতি স্তরেই থাকে পরিচয় যাচাই এবং নজরদারির প্রক্রিয়া। সেই প্রক্রিয়ারই পাসওয়ার্ড- ‘প্রোফাইল’!

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, হঠাত্‍ গজিয়ে ওঠা ম্যাসাজ পার্লার ছাড়া এলাকার বিভিন্ন ফ্ল্যাটেও চলছে যৌন ব্যবসা। ওই সব ফ্ল্যাট যাঁদের ভাড়া দেওয়া হয়েছে, তাঁরা সেখানে থাকেন না। সেখানে থাকে তৃতীয় কোনও ব্যক্তি এবং সে-ই ফ্ল্যাটে যৌনব্যবসা চালায়। কিন্তু সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি ফ্ল্যাটের নথিভুক্ত মালিক বা ভাড়াটিয়া না হওয়ায় তার সম্পর্কে পুলিশের কাছে কোনও তথ্য নেই।
বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেট এলাকায় পানশালা এবং তার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বার ডান্সারের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় এখন ভাড়ায় ফ্ল্যাট নেওয়ার প্রবণতা বেড়েছে। ভিন রাজ্য থেকে আসা অনেক যুবতীই (যাঁরা বিভিন্ন পানশালায় বার ডান্সারের কাজ করেন) এখন বিধাননগর এবং তার উপকণ্ঠে বিভিন্ন আবাসনে ফ্ল্যাট ভাড়া করে থাকেন। তাঁদের একাংশ যৌন ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত বলে অভিযোগ বাগুইআটির বাসিন্দাদের একাংশের।
কিন্তু বাসিন্দারা কেন পুলিশে অভিযোগ করেন না? তাঁদের একাংশের দাবি, পুলিশের কাছে গেলে হয়রানির সম্ভাবনা রয়েছে। তবে পুলিশের দাবি, নিয়মিত অভিযান চলে। পানশালাগুলিতেও নজর রাখা হয়। তবে পানশালায় নাচের অনুমতি সংক্রান্ত বিষয়টি পুলিশের এক্তিয়ারভুক্ত নয় বলেই দাবি করেছেন বিধাননগর সিটি পুলিশের আধিকারিকেরা। গোয়েন্দাপ্রধান সন্তোষ পাণ্ডে বলেন, ”এলাকায় কোনও যৌন ব্যবসার খবর পেলেই পুলিশ ব্যবস্থা নেয়।” তবে চক্রের সঙ্গে যুক্তদের ব্যাপারে পুলিশের কাছে সুনির্দিষ্ট তথ্য নেই।
যদিও পানশালাগুলির একাংশের সঙ্গে অপরাধচক্রের যোগসূত্র রয়েছে বলে নিশ্চিত পুলিশ। গত কয়েক বছরে বেশ কয়েকজন পানশালা মালিকের বিরুদ্ধে মামলাও দায়ের করেছে পুলিশ। নারীপাচারের অভিযোগে সম্প্রতি এক পানশালা মালিককে গ্রেফতারও করা হয়। (চলবে)

এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয়ক ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি ঠিকানা: – YouTube.com/HealthDoctorBD

 

Comments

comments